পাদ্রীশিপপুর ইউনিয়নের মানুষের পাশে থাকার সুযোগ চায় ছাত্রলীগ নেতা মিরাজ

সেপ্টেম্বর ১৫ ২০২০, ১৯:০০

নিজস্ব প্রতিবেদক: বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলার পাদ্রীশিপপুর ইউনিয়নে সমাজসেবকের ভুমিকায় অবতীর্ণ হয়ে বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের পাশে দাড়িয়ে সাধ্যমত কাজ করে আসছেন জাকারিয়া সোয়েব মিরাজ। এলাকার দু:স্থ ও মেহনতি মানুষের আপনজন হয়ে উঠছেন তরুণ সমাজকর্মী জাকারিয়া সোয়েব মিরাজ।

 

এলাকার নানা শ্রেণি-পেশার মানুষের সাথে কথা বলে জানা গেছে, এলাকার বিভিন্ন সমস্যার বিষটি তরুণ সমাজসেবক জাকারিয়া সোয়েব মিরাজের কানে আসলেই তিনি সমস্যা সমাধানের জন্য যথাসাধ্য চেষ্টা করেন। এসব কারণে এলাকার আপামার মানুষের মাঝে জনপ্রিয় হয়ে উঠছেন জাকারিয়া সোয়েব মিরাজ।

 

তাকে এলাকার সাধারণ মানুষ জনপ্রিয় তরুণ সমাজসেবক হিসেবে দেখছেন। এরফলে আগামীর পাদ্রীশিপপুর ইউপির নির্বাচনে তাকেই জনগণের প্রকৃত প্রতিনিধি হিসেবে দেখতে আগ্রহী স্থানীয়রা। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে- আসছে আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে পরিচ্ছন্ন রাজনীতিবিদ ও বরিশাল মহানগর ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি এবং সমাজসেবক জাকারিয়া সোয়েব মিরাজকে চেয়ারম্যান হিসেবে দেখতে চায় বাকেরগঞ্জের পাদ্রিশিবপুর ইউনিয়নের এলাকার সাধারণ জনগণ। জাকারিয়া সোয়েব মিরাজ, কোভিড-১৯ এর মহামারিতে তার নিজ এলাকা বাকেরগঞ্জের পাদ্রিশিবপুর ইউনিয়নের সাধারণ মানুষের মধ্যে সতর্কতামূলক প্রশিক্ষণ প্রদান করেন। এছাড়াও জাকারিয়া মিরাজ তার নিজ অর্থায়নে এলাকার অসংখ্য কর্মহীন পরিবারে পাশে দাড়িয়েছন ও সকলের মাঝে খাদ্যসামগ্রী উপহার দেন।

 

অন্যদিকে এলাকার বিভিন্ন সংগঠন সাংস্কৃতিক, রাজনৈতিক, সামাজিক ও মসজিদ-মাদ্রাসায় অর্থ সহায়তা দিয়ে আসছেন জাকারিয়া সোয়েব মিরাজ। জানা গেছে, বাকেরগঞ্জ উপজেলার ১৩ নম্বর পাদ্রীশিবপুর ইউনিয়নের নুরুল হকের (রত্তন মাস্টার) ছোট ছেলে জাকারিয়া সোয়েব মিরাজ। ১৯৯০ সালে পড়াশুনার তাগিদে বাকেরগঞ্জ থেকে বরিশাল নগরীর বগুরা রোডে বসবাস করেন। ১৯৯১ সালে বরিশালে উদয়ন স্কুলে তৃতীয় শ্রেণিতে ভর্তি হন।

 

ওই স্কুল থেকে ২০০২ সালে বিজ্ঞান বিষয়ে সুনামের সাথে এসএসসি পাশ করেন। ২০০২ সালে সরকারি সৈয়দ হাতেম আলী কলেজে মানবিক শাখায় পরাশুনা করে ২০০৬ সালে সুনামের সাথে এইচএসসি পাশ করেন। তারপর ২০০৬ সালে ওই কলেজেই ডিগ্রিতে ভর্তি হয়ে ২০১১ সালে পাশ করেন। বর্তমানে জাকারিয়া সোয়েব মিরাজ সরকারি বরিশাল ‘ল’ কলেজে অধ্যায়ন করছেন। তথ্যসূত্রে জানা গেছে, জাকারিয়া সোয়েব মিরাজ ২০০১ সালে ছাত্র রাজনীতিতে পা রাখেন।

 

সেখান থেকেই ছাত্রলীগের বিভিন্ন মিছিল, মিটিং ও আন্দলোন সংগ্রামের সাথে নিজেকে রাজনীতির সাথে যুক্ত রাখেন। ছাত্র রাজনীতিতে ২০০৪ সালে বরিশাল সিটি কর্পোরেশনের ১৫ নম্বর ওয়ার্ডের ছাত্রলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি পদে দায়িত্ব পালন করেন। পাশাপাশি ২০০৭ সালে সরকারি সৈয়দ হাতেম আলী কলেজের ছাত্রলীগের হাল ধরেন। তারপর ২০০৯ সাল হতে বরিশাল সিটি কর্পোরেশনের ১৫ নম্বর ওয়ার্ডের ছাত্রলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি পদে দায়িত্ব পালন করেন। এরপর ২০১৩ সাল হতে বরিশাল মহানগর ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছে।

 

অপরদিকে, জাকারিয়া সোয়েব মিরাজ ছাত্র রাজনীতির পাশাপাশি বাংলাদেশ মানবধিকার কমিশন বরিশাল জেলা শাখার সদস্য ও বাকেরগঞ্জ উপজেলার মানবধিকার কমিশনের সাংগঠনিক সম্পাদক পদে কাজ করে আসছেন। এছাড়াও বরিশালের বিভিন্ন পত্র-পত্রিকার উচ্চপদে দায়িত্ব পালন করছেন। সকল সাংগঠনিক কাজে মিরাজ আহতসহ হামলা-মামলারও শিকার হন।

 

একজন তরুণ ও মেধাবী রাজনীতিবীদ মিরাজকে এবারের বাকেরগঞ্জ উপজেলার পাদ্রিশিবপুর ১৩ নম্বর ইউনিয়নের সর্বস্তরের জনগণ চেয়ারম্যান পদে দেখতে চায় বলে জানিয়েছেন ওই এলাকার ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরাসহ এলাকার বিভিন্ন সংগঠন সাংস্কৃতিক, রাজনৈতিক, সামাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দরা। তবে এলাকার গণমান্য ব্যক্তিরা মন্তব্য ছুড়ে বলেন, জাকারিয়া সোয়েব মিরাজের রক্তে মাংশে মিসে আছে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ।

 

মিরাজ একজন রাজনীতিবিদ নয়, সে একজন ভালো মনের মানুষ। কিন্তু আমাদের মনে হয় না, এমন ত্যাগি নেতাদের নির্বাচনের মাঠে মূল্যায়ন করেন। তারপরেও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে বলবো জাকারিয়ার মতন একজন তরুন ও মেধাবী পরিচ্ছন্ন রাজনীতিবীদরাই পারবে সরকারের সকল উন্নয়ন কাজে সহায়তা করতে। এমন তরুণদের সমাজসেবক হিসেবেই দেখতে চায় পাদ্রীশিবপুর ইউনিয়নের এলাকার সাধারণ জনগণ।’

 




আজকের আবহাওয়া

পুরাতন সংবাদ খুঁজুন

September 2020
M T W T F S S
 123456
78910111213
14151617181920
21222324252627
282930  

আমাদের ফেসবুক পাতা


এক্সক্লুসিভ আরও

1190 Shares
%d bloggers like this: