বরিশালে মোড়ে মোড়ে ‘রোমিও’, অসহায় মেয়েরা

ফেব্রুয়ারি ০৯ ২০১৯, ১৫:৩০

নিজস্ব প্রতিবেদক: বরিশাল নগরীর মোড়ে মোড়ে স্থানীয়দের কাছে ‘রোমিও’ খেতাব পাওয়া বখাটেদের উৎপাতে অসহায় হয়ে পড়েছে মেয়েরা। আর অভিভাকরা রয়েছেন চরম দুঃশ্চিন্তায়। বিশেষ করে মেয়েদের স্কুল-কলেজ আর কোচিংয়ের সামনে এসব রোমিওদের আড্ডা বেড়ে যাওয়ায় শহরের কয়েকটি এলাকায় ভয়াবহ যানজটেরও সৃষ্টি হচ্ছে।

একাধিকবার স্ব স্ব থানা পুলিশকে জানিয়েও আশানুরূপ কোন ফল পাওয়া যায়নি। ফলে বিষয়টি নিয়ে বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনারের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন অভিভাবকরা।

খোঁজ-খবর নিয়ে জানা গেছে- শহরের সরকারি বালিকা বিদ্যালয়, সরকারি মহিলা কলেজ, সরকারি বরিশাল কলেজ, সরকারি সৈয়দ হাতেম আলী ও অমৃত লাল দে কলেজের ক্লাশ শুরু হওয়ার সময় এবং ছুটির সময় ওইসব এলাকায় বখাটেদের উৎপাত ব্যাপকভাবে বৃদ্ধি পাচ্ছে। বখাটেরা মোড়ে মোড়ে অবস্থান নিয়ে ধূমপান, চায়ের আড্ডা, কখনো গান-বাজনার আসর বসাচ্ছে। কেউ কেউ আসছেন মোটরসাইকেল নিয়ে।

স্কুল-কলেজ শুরু ও ছুটির সময় রাস্তার ওপর মোটরসাইকেল লাইন পড়ে যাচ্ছে। এতে একদিকে যানজট তৈরি হচ্ছে, অন্যদিকে তাদের কবলে পড়ে স্কুল-কলেজগামী মেয়েরা নাজেহাল হচ্ছে। স্থানীয় প্রভাবশালীদের সন্তান ও আত্মীয় হওয়ায় অভিভাবকরাও ভয়ে বখাটেদের কার্যকলাপের প্রতিবাদ করতে পারছেন না। একই অবস্থা বিরাজ করছে শহরের কাউনিয়া থানাধীন বেলাতলা, উত্তর আমানতগঞ্জ ও মহাবাজসহ অধিকাংশ এলাকায়।

সাম্প্রতি কাউনিয়া থানা পুলিশের অভিযানে বেশ কয়েকজন রোমিও আটক হলেও পরবর্তীতে মুক্তি পেয়ে ফের উৎপাত শুরু করেছে।

যেই বিষয়টি আজ শনিবার (০৯ ফেব্রুয়ারি) বরিশাল শহরের বিভিন্ন এলাকার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সামনে ঘুরে প্রতীয়মাণ হয়েছে।

এমন পরিস্থিতিতে অভিভাবকদের আশা পুলিশ কমিশানার (অতিরিক্ত আইজিপি) মোশারেফ হোসেন নিজেই এ ব্যাপারে পদক্ষেপ নেবেন।

তবে এই বিষয়ে শীর্ষ পুলিশ কর্মকর্তার মতামত না পাওয়া গেলেও মুখপাত্র সহকারি পুলিশ কমিশনার (এসি) নাসির উদ্দিন মল্লিক বলছেন- বিষয়টি শুনে ইতিমধ্যে ব্যবস্থা গ্রহণে মাঠ পুলিশকে নির্দেশনা দিয়েয়ছেন। অপরাধী যেই হোক না কেন তাকে আইনের আওতায় এনে শাস্তি দেওয়া হবে।’




আজকের আবহাওয়া

পুরাতন সংবাদ খুঁজুন

নভেম্বর ২০১৯
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
« অক্টোবর    
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০  

আমাদের ফেসবুক পাতা


এক্সক্লুসিভ আরও

%d bloggers like this: